৫২ রানে জিতে সিরিজে ফিরল ব্ল্যাকক্যাপস

মিরপুরের হোম অব ক্রিকেটে তৃতীয় টি-টুয়েন্টি। আগের দুই ম্যাচ জিতে সিরিজে এগিয়ে বাংলাদেশ। হারলেই সিরিজ খোয়া নিউজিল্যান্ডের। সফরকারী ক্যাপ্টেন ট্ম ল্যাথাম টস জিতে নিলেন ব্যাটিং। বাংলাদেশের অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের রেকর্ডের ম্যাচ। প্রথম বাংলাদেশি হিসেবে খেলতে নেমেছিলেন দেশের জার্সিতে নিজের ১০০ তম টি-টোয়েন্টি ম্যাচ।

কিউইদের দারুণ শুরু। কোভিড কাটিয়ে ফিন অ্যালেনের ব্যাটে। ১৫ রান এই ওপেনারের। এরপরে রবীন্দ্র ২০, ইয়াং ২০, ডি গ্র্যান্ডহোম ০, ল্যাথাম ৫ করে ফেরেন। ষষ্ঠ উইকেটে ম্যাচে ফেরে সফরকারীরা।

নিকোলস ৩৬, ব্লান্ডেল ৩০ করে অপরাজিত থাকেন। নিউজিল্যান্ড ২০ ওভারে তোলে ১২৮/৫। বাংলাদেশি বোলারদের বোলিং ফিগার ছিল মেহেদি ৪-০-২৭-১, নাসুম ২-০-১০, মুস্তাফিজ ৪-১-২৯-১, সাকিব ৪-০-২৪-০, সাইফ ৪-০-২৮-২, মাহমুদউল্লাহ ২-০-১০-১।

জবাবে বাংলাদেশের শুরুটা ভালো হলেও ধরে রাখা হয়নি। উইকেট হারিয়েছে নিয়মিত বিরতিতে। নাঈম ১৩, লিটন ১৫, মেহেদি ১, সাকিব ফেরেন শূন্য রানে। এরপরে মাহমুদউল্লাহ ৩, আফিফ ০, সোহান ৮, সাইফ ৮, নাসুম ১ করেন। মাঝে মুশফিক অপরাজিত থাকেন ২০ রানে।

নিজেদের ফাঁদা স্পিন ফাঁদে শেষ বাংলাদেশ। কিউই বোলারদের বোলিং ফিগার ছিল এজাজ ৪-০-১৬-৪, ম্যাকনকি ৪-০-১৫-৩, রবীন্দ্র ৪-০-১৩-১, কুগেলাইন ৩-০-১৪-১, ডি গ্র্যান্ডহোম ০.৪-০-২-১। নিউ জিল্যান্ড জিতেছে ৫২ রানে। ৫ ম্যাচ সিরিজে বাংলাদেশ ২-১ ব্যবধানে এগিয়ে। ম্যান অব দা ম্যাচ হয়েছেন এজাজ প্যাটেল।

ম্যাচ শেষে বাংলাদেশের কোচ ডমিঙ্গো জানান, “আশা করছিলাম, আগের ম্যাচের মতো রাতে উইকেটে বল স্কিড করবে। কিন্তু আজকে উইকেট পরে আর খুব একটা ভালো হয়নি। ২ ওভারে ২০ রান তোলার পর আর ১১০ রান দরকার ছিল। এরপর খেলাটা যেভাবে শেষ হয়েছে, তাতে হতাশ। তবে একসঙ্গে অনেক উইকেট হারানোয় আমরা পেছনে পড়ে গেছি। নিউজিল্যান্ড আজকে আমাদের উড়িয়ে দিয়েছে। পুরো কৃতিত্ব ওদের।” টাইগারদের পরের ম্যাচ মিরপুরে ৮ সেপ্টেম্বর।

৫২ রানে জিতে সিরিজে ফিরল ব্ল্যাকক্যাপস

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to top
error: Content is protected!!
Share via
Copy link
Powered by Social Snap